ফিরে যেতে প্রস্তুত বিত্তশালী রোহিঙ্গারা, তবে…

0
62

কক্সবাজারে আশ্রিত প্রায় ১১ লক্ষাধিক রোহিঙ্গাদের মধ্যে কিছু কিছু রোহিঙ্গা পরিবার টাকা-পয়সা নিয়ে সচ্ছল রয়েছেন। সুযোগ পেলে মূহুর্তেই ফেরত যেতে চাই এরা।

বর্তমানে শিবিরে আশ্রিত, যারা মিয়ানমারে থাকাকালীন সম্পদশালী ছিলেন পরে রাখাইন নির্যাতনের শিকার হয় এবং সবার মতোই জানমালের নিরাপত্তার কথা ভেবে এদেশে ছুটে এসেছিলেন, এখন তাদের মধ্যে অনেকেই স্বদেশে ফেরত যেতে প্রস্তুত বলে জানা যায় তাদের সাথে কথা বলে।

জানা যায়, তারা অনেকেই বিভিন্ন কলাকৌশলের মাধ্যমে মিয়ানমারে ফিরে যেতে চাইলেও পারছেনা। ক্যাম্পে অভ্যন্তরে গোপনে অবস্থান করা সন্ত্রাসী বাহিনী আল ইয়াখীনের নেতারা প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে। নির্যাতনের ভয় দেখিয়ে তাদের আটকে রাখা হয়। এমতাবস্থায় চুরি করেও ক্যাম্প ছাড়ার সুযোগ নেই ফিরতে ঐচ্ছিক কতিপয় রোহিঙ্গাদের।

বালুখালী ক্যাম্প ১১ ব্লক সি-১ এ আশ্রিত রোহিঙ্গা মাস্টার এনায়েত উল্লাহ ও তার পাশাপাশি অবস্থান করে তার বোন ফরিদা খাতুনের পরিবার এবং তার শ্যালক শহিদুল্লার পরিবার।

মাস্টার এনায়েত উল্লাহ জানান, রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধান হোক আর না হোক। আমরা সর্বদা ফিরতে চাই ও সেই সুদিনটির অপেক্ষায় আছি। মিয়ানমারে ফেলে আসা সম্পত্তি আমাদের টানে। সেখানে যাদের ফেলা আসা প্রচুর সম্পদ পড়ে আছে তাদের মতো আমরাও চলে যেতে চাই।

আরো জানান, চলে যেতে চাইলে পারছিনা। এদেশের প্রশাসনের নজরদারি রয়েছে। সে সাথে রোহিঙ্গা গ্রুপ আলা ইয়াখীন সবচেয়ে বড় বাঁধা হিসেবে রয়েছে। চলে যাওয়ার কথা বললে মারধরের হুমকি দেয়। আমরা দেখেছি হুমকির শিকার হয়েছে অনেকেই।

এ বিষয়ে ব্লক সি১১ এর মাঝি আইয়ুব বলেন, আলা ইয়াখীন গ্রুপের নেতারা আমাদের ভাল চাইনা। এরা সবসময় ষড়যন্ত্র ও সন্ত্রাসী কাজে লিপ্ত থাকে। এরা সাধারণ রোহিঙ্গাদের বাধ্য করে মূলত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here