মদিনার সে ঐতিহাসিক কবরস্থান জান্নাতুল বাকি (ভিডিও)

0
13652

১০ হাজার সাহাবি ও নবীর পরিবারের সদস্যদের নিয়ে জান্নাতুল বাকি। মদিনা মোনাওয়ারায় অবস্থিত একটি ঐতিহাসিক কবরস্থান। যেটাকে আরবীতে বলা হয়- বাকিউল গারকাদ। যা হালে মদিনাবাসীর কাছে বাকি কবরস্থান নামে পরিচিত। জান্নাতুল বাকি মসজিদে নববীর পূর্ব দিকে অবস্থিত।

মদিনার সে ঐতিহাসিক কবরস্থান জান্নাতুল বাকি ( ভিহাজার সাহাবার কবর রয়েছে। কিন্তু কোনো কবর চিহ্নিত নেই। জান্নাতুল বাকিতে নবী করিম (সা.)-এর পরিবারের অধিকাংশ সদস্য থেকে শুরু করে, সাহাবা, পীর-আউলিয়া, গাওস-কুতুব, বুজুর্গ এবং প্রচুর মুসলমানের কবর বিদ্যমান।

জান্নাতুল বাকি কবরস্থান। ছবি: মুফতি এনায়েতুল্লাহ এই কবরস্থানের গোড়াপত্তন ইসলামের সূচনালগ্ন থেকেই। হজরত রাসূলুল্লাহ (সা.) প্রায়ই শেষ রাতে জান্নাতুল বাকিতে যেতেন এবং দোয়া করতেন। দোয়ায় নবী করিম (সা.) বাকি কবরবাসীদের জন্য ক্ষমা প্রার্থনা করতেন। হাদিসে আছে, হজরত আয়েশা (রা.) হতে বর্ণিত, হজরত রাসূলুল্লাহ (সা.) শেষ রাতে বাকির দিকে বেরিয়ে যেতেন এবং বলতেন, ‘হে (কবরের) মুমিন সম্প্রদায়! তোমাদের প্রতি শান্তি বর্ষিত হোক, তোমাদের নিকট এসেছে যা তোমাদেরকে ওয়াদা দেওয়া হয়েছিল, কাল কিয়ামত পর্যন্ত তোমরা অবশিষ্ট থাকবে এবং ইনশাআল্লাহ নিশ্চয়ই আমরাও তোমাদের সঙ্গে মিলিত হবো। হে আল্লাহ! তুমি বাকিউল গারদবাসীদের ক্ষমা করে দাও।’ –সহিহ মুসলিম

কবর জিয়ারত করা প্রত্যেক স্থানেই শরিয়তসম্মত। এ বিষয়ে হজরত রাসূলুল্লাহ (সা.) হাদিসে ইরশাদ করেছেন, ‘তোমরা কবর জিয়ারত করো, কেননা তা তোমাদের মৃত্যুকে স্মরণ করিয়ে দেবে।’ –সহিহ মুসলিম

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here