যে নারীর ব্রেস্ট ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি সবচেয়ে বেশি ! (স্বাস্থ্য তথ্য)

ব্রেস্ট ক্যান্সার বা স্তন ক্যান্সার আজকাল নারীদের একটি ভয়াবহ রোগ। এ রোগের কারণে অনেক নারী মারা যাচ্ছেন। স্তনের কিছু কোষ যখন অস্বাভাবিকভাবে বেড়ে উঠে তখন স্তন ক্যান্সার হতে দেখা যায়। পুরুষের থেকে মহিলাদের স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার ঝুকি বেশি থাকে।

নিয়মিত স্তন পরীক্ষা করা কিংবা প্রতি এক অথবা দুই বছর অন্তর ম্যামোগ্রাম(স্তনের এক্সরে ছবি) করিয়ে আপনি সম্ভবত ভাবছেন, স্তন ক্যান্সার প্রতিরোধে আপনি যথেষ্ট সতর্কতা অবলম্বন করছেন। সমস্যা হলো স্তনে চাকা কিংবা মাংসপিন্ডের উপস্থিতি সনাক্ত করার কথা শুনতে যতটা সহজ মনে হয় বাস্তবে এটা সনাক্ত করা ততটা সহজ নয়।

গবেষণায় দেখা গেছে, যতক্ষণ মাংসপিন্ডের আকার অন্তত ১০ থেকে ১৫ মিলিমিটার সাইজের না হচ্ছে ততক্ষণ স্পর্শের মাধ্যমে এর উপস্থিতি সনাক্ত করা কঠিন। স্তনে সৃষ্টি হওয়া টিউমার ২০ মিলিমিটার বা তার বেশি হলেই সুনিশ্চিতভাবে আপনি তা স্পর্শের মাধ্যমে অনুভব করতে পারবেন।

কিন্তু এ ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার ক্ষেত্রে কোন ধরনের নারীর ঝুঁকি বেশি সে বিষয়ে নতুন করে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের শীর্ষ স্থানীয় কয়েকজন ডাক্তার। তারা বলেছেন, যেসব নারীর ব্রেস্টের ঘনত্ব যত বেশি তার জেনেটিক কারণের চেয়ে শুধু এ কারণে ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বেশি।

Leave a Reply