দেশের খবর

বিদ্যুৎ বিল দোকানে দিতে গিয়ে ২২ বছর পর ধরা পড়লো ফাঁসির আসামি!

** সে তার দাড়ি কেটে তার নাম পরিবর্তন করে জাতীয় পরিচয়পত্র করেছে
** যদিও তার বাড়ি মেহেরপুরে ছিল, রাজশাহীতে তার আবাসস্থলকে বলা হতো গাজীপুর
** 22 বছর পর, সার্চ মেলে বিদ্যুৎ বিলের উৎসের সাথে

জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জেএসডি) প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি এবং ১৯৯১ সালে মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক কাজী আরেফ আহমেদ হত্যার পর রওশন ওরফে আলী ওরফে উদয় মণ্ডল রাজশাহীতে চলে আসেন। সেখানে তিনি আইন -শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর চোখ এড়াতে তার নাম ও ঠিকানা পরিবর্তন করে নতুন জীবন শুরু করেন। তিনি তার চেহারায় পার্থক্য আনতে দাড়ি ফেলে দিলেন। তিনি প্রথমে রাজশাহীতে নিজেকে আলি বলে পরিচয় দিলেও মেহেরপুরের গাংনির বাসিন্দা রওশন পরে গাজীপুরে উদয় মণ্ডল নামে একটি জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি করেন। দীর্ঘদিন তিনি রাজশাহীতে একটি গরুর খামার স্থাপন করেন।

অন্যদিকে, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী দীর্ঘদিন ধরে হত্যাকারী রওশনকে খুঁজছিল কিন্তু তার কোন সন্ধান পায়নি। পরে এলিট ফোর্স র‌্যাবপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) একটি মোবাইল নম্বর ব্যবহার করে তদন্ত শুরু করে। রওশন ওই মোবাইল নম্বর দিয়ে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করেন। যদিও নম্বরটি দীর্ঘদিন বন্ধ ছিল, তিনি এক সময় এটি সক্রিয় করেছিলেন। বিদ্যুৎ বিল পরিশোধের এই তথ্যের ভিত্তিতে র র‌্যাব তার বাড়ির নম্বর খুঁজে পায়। সাম্প্রতিক এক অভিযানে র‌্যাব রাজশাহীর শাহ মখদুম থানার বড়ালীপাড়া এলাকা থেকে রওশনকে গ্রেফতার করে।

র‌্যাব জানায়, রওশন জাসদারের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি কাজী আরেফ হত্যাসহ একাধিক মামলার আসামি এবং মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি একজন ‘সিরিয়াল কিলার’। কাজী আরেফ ছাড়াও তিনি স্থানীয় চেয়ারম্যান এবং আরও ছয় -সাতজনকে হত্যার চক্রান্তের সাথে জড়িত।

Jannat Tia

Hey! I'm Jannat Tia. Bangladeshi Content creator and Content writer. I would like to write about trending topic and news of National and International

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button